দেশ লিড নিউজ

ফোনে আড়িপাতা, বৃহস্পতিবার শুনবে সুপ্রিম কোর্ট

বারবার মুলতুবি অধিবেশন। আড়িপাতা কাণ্ডে সংসদ কার্যত অচল। তোলপাড় করে রেখেছেন বিরোধীরা। মামলা গড়িয়েছে সুপ্রিম কোর্টে। বৃহস্পতিবার শুনানি সর্বোচ্চ আদালতে। ইজরায়েলি স্পাইওয়্যার পেগাসাসের মাধ্যমে দেশের বিভিন্ন রাজনীতিবিদ, সাংবাদিক, বিচারপতি, শিল্পপতি সহ প্রায় ৪০০-রও বেশি মানুষের ফোনে আড়ি পাতা হয়েছিল বলে অভিযোগ।

বাদল অধিবেশনের শুরুর আগের দিনই বিষয়টি সামনে আসায় প্রভাব পড়েছে অধিবেশনেও। রোজই বিরোধীরা এই ইস্যু নিয়ে লোকসভা–রাজ্যসভায় বিক্ষোভ দেখাচ্ছেন। যার জেরে অধিবেশন প্রক্রিয়া ব্যাহত হচ্ছে। ইতিমধ্যেই সুপ্রিম কোর্টের নজরদারিতে তদন্তের দাবি তুলেছেন বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সর্বোচ্চ আদালতে মামলা করেছেন দুই এন রাম এবং শশী কুমারও। তাঁদের দাবি, অবসরপ্রাপ্ত বা বর্তমান বিচারপতির দায়িত্বে তত্ত্বাবধানে বিশেষ তদন্তকারী দল গড়ে ফোনে আড়িপাতার তদন্ত হোক।

প্রবীণ সাংবাদিক এন রাম ও শশী কুমার, সিপিএমের সাংসদ জন ব্রিটাস ও আইনজীবী এমএল শর্মা এই বিষয়ে নিরপেক্ষ তদন্তের দাবি করে সুপ্রিম কোর্টে আর্জি জানান। কেন্দ্রের কাছে এই স্পাইওয়্যার ব্য়বহারের লাইসেন্স আছে কিনা, আদৌই এই স্পাইওয়্যার ব্যবহার করে নজরদারি রাখা হয়েছে কিনা, তা জানতে জনস্বার্থ মামলাও করা হয়েছে। শুক্রবার শুনানির জন্য মামলাটি তালিকাভুক্ত করার অনুরোধ করেন মামলাকারীদের আইন কপিল সিব্বল।

 

সেই অনুরোধ সাড়া দেন সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতি এন ভি রামানা। জানিয়েছিলেন, ‘এই মামলাটি আগামী সপ্তাহে শোনা হবে’।
আগামী বৃহস্পতিবারই এই মামলার প্রথম শুনানি হতে চলেছে। প্রধান বিচারপতি এনভি রমন ও বিচারপতি সূর্য কান্তের বেঞ্চ এই মামলার শুনানি করবেন। শুক্রবারও এই ইস্যুতে সংসদের দুই কক্ষেই হাঙ্গামা চলে।বিরোধীদের বিক্ষোভ-স্লোগানে দফায়-দফায় মুলতুবি হয়ে যায় দুই কক্ষেরই অধিবেশন।